The DU Speech https://www.duspeech.com/2022/12/italy-student-visa.html

ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩

দেশের অনেক স্টুডেন্ট বাহিরে বিভিন্ন দেশে পড়ার স্বপ্ন দেখে। এবং তাদের পছন্দের শীর্ষে থাকে ইতালী। কিন্তু তারা অনেকেই জানে না তাদের স্বপ্নের দেশে পড়তে হলে কিভাবে  ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ সালের জন্য আবেদন করবে বা কি কি ডকুমেন্ট লাগবে।তাদের জন্যই ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩  নিবন্ধনটি লেখা। আশা করা যায়, তাদের সকল মনের প্রশ্নের উত্তর দিতে পারবে ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ এই আর্টিকেলটি। তাই সাথেই থাকুন।


আর্টিকেল সূচিপত্র (যে অংশ পড়তে চান তার ওপর ক্লিক করুন)

  1. কীভাবে বাংলাদেশ থেকে ইতালির স্টুডেন্ট ভিসা পাবেন
  2. ইতালিতে কেন পড়াশোনা করবেন
  3. ইতালি স্টুডেন্ট ভিসার জন্য আবেদন ও যোগ্যতা
  4. ইতালি স্টুডেন্ট ভিসার ধরন
  5. ইতালি স্টুডেন্ট ভিসার প্রয়োজনীয় কাগজপত্র
  6. স্টুডেন্ট ভিসার খরচ কেমন হয়
  7. আর্টিকেল সম্পর্কিত প্রশ্ন-উত্তর
  8. লেখকের মন্তব্য

১.কীভাবে বাংলাদেশ থেকে ইতালির স্টুডেন্ট ভিসা পাবেন।ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩

উচ্চশিক্ষা লাভ করার জন্য আমাদের দেশ থেকে প্রতি বছর অনেক শিক্ষার্থী দেশের বাইরে যায়। ঠিক তেমনি ভাবে আপনি চাইলে উচ্চশিক্ষা লাভ করার জন্য ইতালি যেতে পারেন। বাংলাদেশ থেকে কিভাবে ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ সালে পাবেন তা জানতে পারবেন নিবন্ধনের এই পর্বে।

ইতালি বর্তমানে আন্তর্জাতিক ছাত্রদের জন্য বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় গন্তব্যগুলির মধ্যে একটি। ইতালির উচ্চ শিক্ষা ব্যবস্থা বিভিন্ন ক্ষেত্রে শিক্ষার্থীদের দক্ষতা বৃদ্ধিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। ইতালিতে 90টি নিবন্ধিত উচ্চ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান রয়েছে। এর মধ্যে 50 টিরও বেশি সরকারী অর্থায়ন করা হয়। কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয় ছাড়াও, এখানে স্নাতকোত্তর কেন্দ্র, পলিটেকনিক এবং উচ্চ শিক্ষার অন্যান্য প্রতিষ্ঠান রয়েছে।

২.ইতালিতে কেন পড়াশোনা করবেন?ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩

ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ সালে পেয়ে কেন জাবেন ইতালিতে পড়তে তা জানতে চাইলে সেখানের পড়ার সুবিধা গুলো  পড়ুন/
  • আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থীদের জন্য সেরা কয়েকটি স্থানের মধ্যে একটি হচ্ছে ইতালি।এখানে বিশ্বব্যাপী স্বীকৃত ডিগ্রি প্রদানকারী অনেকগুলো বিশ্ববিদ্যালয় রয়েছে। 
  • তুলনামূলকভাবে স্বল্প টিউশন ফি দিয়ে পড়াশোনা করতে পারবেন। 
  • স্বল্প খরচে বাস করতে পারবেন। 
  • শিক্ষা খাতে নিত্যনতুন বৈচিত্র্য দেখতে পাবেন। 
  • পড়ালেখার পাশাপাশি কাজ করার সুযোগ পাবেন। 
  • অনেক ধরনের কোর্স থেকে নিজের পছন্দমতো কোর্স বাছাই করে পড়তে পারবেন।
  • ইতালিতে উচ্চশিক্ষা লাভ করার অনেক ডিগ্রি ও প্রতিষ্ঠান রয়েছে। 
  • ইতালি স্টুডেন্ট ভিসার জন্য আপনার কিছু যোগ্যতার প্রয়োজন হবে। 

৩.ইতালি স্টুডেন্ট ভিসার জন্য আবেদন ও যোগ্যতা । ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩

ইতালিতে উচ্চশিক্ষা লাভ করার অনেক ডিগ্রি ও প্রতিষ্ঠান রয়েছে। আপনি যখন ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ সালের জন্য আবেদন করবেন বা আপনি যখন স্টুডেন্ট ভিসা নিয়ে ইতালি যাবেন তখন কিন্তু আপনার কিছু আলাদা ভাবে যোগ্যতার প্রমাণ দিতে হবে। আপনাকে প্রথমে HSC পরীক্ষায় সন্তুষ্টজনক ফলাফল অর্জন করতে হবে। আপনার একটা বৈধ পাসপোর্ট ও জাতীয় পরিচয় পত্র থাকতে হবে। 

প্রথম অবস্থায় ইতালিতে আপনি কোন ইউনিভার্সিটি তে পড়াশোনা করতে চান সে ইউনিভার্সিটি তে স্কলারশিপ এর জন্য আবেদন করতে হবে। আবেদন করতে হলে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র গুলো ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে জমা দিতে হবে পরবর্তীতে আবেদন গ্রহন করলে আপনাকে একটি ইনভাইটেশন লেটার পাঠাবে যেটা ইতালি দূতাবাস হতে সত্যায়িত করে নিতে হবে।

পরবর্তীতে লেটার পাঠিয়ে দেওয়ার পরেই আপনি ভিসার জন্য আবেদন করতে পারবেন। ধরুন, আপনি ইতালি গিয়ে University of Bologna বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে চান। সেই বিশ্ববিদ্যালয় যদি আপনাকে গ্রহণ করে। তাহলে University of Bologna আপনাকে একটা আমন্ত্রণপত্র দেবে। সেই আমন্ত্রণ পত্র ভিসা করার সময় জমা দিতে হবে। এছাড়াও ইংরেজি ভাষায় দক্ষ হতে হবে। 

এই কয়েকটা যোগ্যতা থাকলে আপনি ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা করতে পারবেন। তাছাড়া বেসরকারি মাধ্যমে যদি আপনি ইতালিতে স্টুডেন্ট ভিসা নিয়ে প্রবেশ করতে চান তাহলে সরাসরি সমস্ত এজেন্সির মাধ্যমে গিয়ে কাগজপত্র জমা দিয়ে ভিসার জন্য আবেদন করতে পারবেন এই ক্ষেত্রে কি কি কাগজপত্র লাগবে তা নিচে বিস্তারিতভাবে তুলে ধরা হয়েছে

৪.ইতালি স্টুডেন্ট ভিসার ধরন। ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩

উচ্চ শিক্ষার জন্য বাংলাদেশ থেকে প্রতিবছর যেসব ছাত্র বাইরে যায় তার বড় একটি অংশ ইতালি কে তাদের প্রধান পছন্দ রাখেন কারণ ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ সালে এসে পাওয়া সহজ তাছাড়াও আন্তর্জাতিক মানের বিশ্ববিদ্যালয়, মানসম্মত ক্যারিকুলাম ও স্বল্প টিউশন ফি এর জন্য ইতালি সবার পছন্দের শীর্ষে থাকে। চলুন দেখে নেয়া যাক আপনি যদি একজন স্টুডেন্ট হোন আর ইতালিতে উচ্চ শিক্ষার জন্য যেতে চান তাহলে আপনার হাতে কি কি অপশন আছে আর খরচ কত পড়বে।

  • ১।সাবক্লাস 500 স্টুডেন্ট ভিসা: এই ভিসাতে একজন রেজিস্টার্ড স্টুডেন্টকে যেকোনো ধরনের কোর্স করতে সুজোগ দেয়া হয়। এই ধরনের ভিসা পেতে ছাত্রদের বয়স কমপক্ষে ছয় বছর হতে হবে। আপনার অবশ্যই যেকোনো ইতালীয় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে প্রবেশাধিকার থাকতে হবে এবং স্বাস্থ্য বীমা থাকাও লাগবে।এই ছাত্র ভিসার জন্য কোন স্পনসর প্রয়োজন হয় না. এই ভিসাগুলো সর্বোচ্চ পাঁচ বছরের জন্য বৈধ। এই ভিসা দিয়ে, আপনি ইতালিতে পড়াশোনার পাশাপাশি খণ্ডকালীন  বা পার্ট্টাইম জব বা  কাজ করতে পারেন। আপনি আপনার ভিসার আবেদনপত্রে আপনার পরিবার এবং আত্মীয়দের নাম উল্লেখ করতে পারেন অথবা আপনি চাইলে তাদের জন্য আলাদা ভিসার জন্য আবেদন করতে পারেন। এই স্টুডেন্ট ভিসার জন্য 30,000 টাকা থেকে 35,000 টাকা খরচ হতে পারে।

  • ২।স্টুডেন্ট গার্ডিয়ান ভিসা (সাবক্লাস ৫৯০): এই ভিসা পেতে হলে আপনার পরিবারবর্গের কোনো সদস্যকে পূর্বেই ইতালির অধিবাসী হতে হবে। এছাড়া পড়ালেখার খরচ ও বাসস্থান খরচ ওঠানোর মতো যথেষ্ট পরিমাণ অর্থ থাকতে হবে এবং ২১ বছর বয়ইয়ের বেশী হতে হবে। স্পন্সর ছাড়াও এ ধরনের ভিসার আবেদন করা যায়। এ ধরনের ভিসা সর্বোচ্চ পাঁচ বছর মেয়াদি হয়ে থাকে। পড়ালেখার পাশাপাশি পার্ট টাইম ও ফুল টাইম চাকরিও করতে পারবেন। পরিবার ও আত্মীয়স্বজনদের জন্য আলাদা আলাদা ভিসার আবেদন করতে হবে। এই ধরনের ভিসায় আবেদন করতেও  ৩০০০০ টাকা থেকে ৩৫০০০ টাকার মতো খরচ হতে পারে।

  • ৩।স্পেশাল ক্লাস স্টুডেন্ট ভিসা (সাবক্লাস 444): এই ভিসা পেতে হলে, আপনার পরিবারের যেকোনো সদস্য বা আত্মীয়দের অবশ্যই ইতালিতে বসবাস করতে হবে। শিক্ষার্থীর অবশ্যই স্বাস্থ্য বীমা থাকতে হবে। ভিসার জন্য আবেদন করার জন্য আপনার স্পনসরের প্রয়োজন নেই। এই ভিসার কোন বৈধতা নেই. পড়ালেখা ছাড়া অন্য যেকোনো ধরনের কাজ করতে পারেন। পরিবার এবং আত্মীয়দের জন্য আলাদা ভিসার আবেদনের প্রয়োজন নেই। এছাড়াও এই ভিসার জন্য আবেদন করতে কোন খরচ নেই।অনলাইন ভিসার আবেদনপত্র অথবা আপনি যেকোনো ট্রাভেল এজেন্সি থেকে আপনার ভিসার সমস্যার সমাধান পেতে পারেন। চটকদার বিজ্ঞাপন দেয় এমন এজেন্ট থেকে সাবধান থাকতে হবে।

৫.ইতালি স্টুডেন্ট ভিসার প্রয়োজনীয় কাগজপত্র। ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩

ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ সালে পেতে আপনাকে অবশ্যই কিছু কাগজপত্র সাথে রাখতে হবে। সেইসাথে এই সমস্ত কাগজপত্র গুলো অবশ্যই সত্যায়িত করে তারপরেই দূতাবাসের মাধ্যমে তা জমা দিতে হবে। এবং সমস্ত কাগজপত্র গুলোতে যে সমস্ত স্বাক্ষর করার প্রয়োজন অথবা সত্যায়িত করার প্রয়োজন তা আগেই করে নিতে হবে।
  1. • ফর হেলথ ইন্স্যুরেন্স (OSHC)
  2. • ফৌজদারি এবং অপরাধমূলক কাজের প্রশংসাপত্রের আবেদন ফর্ম
  3. • আইএলটিএস স্কোর সার্টিফিকেট |
  4. • চেয়ারম্যান কর্তৃক সত্যায়িত সনদপত্র
  5. • ৬ মাস মেয়াদি পাসপোর্ট
  6. • ৪ কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি
  7. • ছয় মাসের ব্যাংক স্টেটমেন্ট এর ফটোকপি |
  8. • মার্কশিট সহ সনদপত্র এবং সার্টিফিকেট প্রদান করতে হবে।
  9. • ন্যাশনাল আইডি কার্ডের ফটোকপি নিবন্ধন আইডি কার্ডের ফটোকপি |

উপরুক্ত কাগজপত্রগুলো যদি কোনো ধরনের ভুল  থাকে তা আগে থেকেই সঠিকভাবে তা ঠিক করে নিতে হবে। কোনধরনের ভুল থাকলে কিন্তু ভিসা কার্যক্রম ব্যাঘাত ঘটাতে পারে অথবা এটি বাতিল হয়ে যেতে পারে তাই অবশ্যই ভুল  ঠিকঠাক করে নিতে হবে।

৬.স্টুডেন্ট ভিসার খরচ কেমন হয়।ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩

কেউ যদি ইতালির স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ সালে তৈরি করতে চান তাহলে আপনাদেরকে সর্বনিম্ন খরচে নিয়ে যাওয়া হবে।কারণ স্টুডেন্টরা সেখানে পড়াশোনা করতে চাই এবং এই ক্ষেত্রে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাড় সহকারে এবং সেই দেশের সরকার মেধাবী শিক্ষার্থীদের প্রাধান্য প্রদান করার উদ্দেশ্যে মাত্র এক থেকে দুই লক্ষ টাকার ভেতরে আপনাদের ভিসার এই যাবতীয় কাজ সম্পন্ন করে ফেলে। তবে স্টুডেন্ট ভিসা পেতে হলে আপনাকে সেই বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তির যাবতীয় কাগজপত্র এবং সেখানে যেয়ে আপনি এডমিশনের চান্স পেয়েছেন সেই বিষয়গুলো নিশ্চিত হওয়ার জন্য যাবতীয় কাগজপত্র প্রদর্শন করতে হবে।তাই আপনি স্টুডেন্ট ভিসায় গিয়ে যে কাজ করবেন তা হবে না।

৭. আর্টিকেল সম্পর্কিত প্রশ্ন-উত্তর 

 প্রশ্ন ১: ইতালিতে কয় ধরনের স্টুডেন্ট ভিসা পাওয়া যায়?

উত্তর: ইতালিতে মূলত তিন ধরনের স্টুডেন্ট ভিসা প্রচলিত।

প্রশ্ন ২:আবেদন করার জন্য সর্বোচ্চ কত খরচ হবে?

উত্তর:ভিসার আবেদন করার জন্য সর্বোচ্চ ৪০০০০ টাকা থেকে ৫৫০০০ টাকা পর্যন্ত খরচ হতে পারে।

প্রশ্ন ৩: ভিসা ও ভর্তির প্রসেসিং হওয়ার জন্য কমপক্ষে কত দিন লাগবে?

উত্তর:ভিসা ও ভর্তির প্রসেসিং হওয়ার জন্য কমপক্ষে ৯০ থেকে ১২০ দিন লাগতে পারে।

৮. লেখকের মন্তব্য

প্রিয় পাঠক, ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে। ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩-সালে কি কি করতে হবে কোথায় আবেদন করতে হবে কি কি কাগজপত্র, যোগ্যতা লাগবে -এসবনিয়ে আলোচনা করা হয়েছে। আপনাদের যে কোন বিষয়ে আপনাদের কোন অভিযোগ বা মতামত নিচের কমেন্ট বক্সে লিখে জানাবেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় আর্টিকেল সংগঠন The DU Speech এর পাশেই থাকবেন। ইতালি স্টুডেন্ট ভিসা ২০২৩ সম্পর্কে হোক বা যেকোন বিষয়ে আমরা আপনার মতামতকে গুরুত্বের সাথে বিবেচনা করব।

লেখক: আলামিন মজুমদার
পড়াশোনা করছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবস্থাপনা ও তথ্য প্রযুক্তি বিভাগে। তিনি পড়াশোনার পাশাপাশি লেখালেখি করতে পছন্দ করেন।
জেলা: চাঁদপুর 



ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় আর্টিকেল রাইটিং সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা
মো. আব্দুল্লাহ আল মামুন
পড়াশোনা করছেন:  ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগে।
জেলা: নাটোর

পরিচিতদেরকে জানাতে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

অর্ডিনারি আইটি কী?